1. dipanchalbarguna@gmail.com : dipanchalAd :
শাওয়াল মাসের ছয় রোজার গুরুত্ব ও ফজিলত - dipanchalnews
শনিবার, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৭:১৫ অপরাহ্ন
শীর্ষ সংবাদ :
দেড় বছর কারাগারে সাংবাদিক জামাল, অনাহারে পরিবার বরগুনা থানা পুলিশের বিরুদ্ধে মারধরের অভিযোগ অস্বীকার সরকারী নীতি নির্দেশনা বিষয়ক ২ দিনের প্রশিক্ষণ অনুষ্ঠিত বরগুনা শহরে আবারো প্রতারক চক্রের খপ্পরে ভদ্রমহিলা প্রতারক গ্রেফতার বরগুনা প্রেসক্লাবের সামনে থেকে চেতনানাশক স্প্রে দিয়ে নারীর ব্যাগ ছিনতাই বিদ্যালয় এখন প্রধান শিক্ষকের বাসভবন বরগুনার বিসিক শিল্প নগরীতে কড়া নজরদারি চায় দর্শনার্থীরা বরগুনায় ফেইসবুকে ধর্ষকের সাফাই গাইলেন জেলা ছাত্রলীগ নেতা বরিশাল রেঞ্জের শ্রেষ্ঠ অফিসার ইনচার্জ হওয়ায় কে.এম. তারিকুল ইসলাম কে শুভেচ্ছা জানিয়েছেন বরগুনা সদর থানা পুলিশ বরিশাল রেঞ্জের আবার শ্রেষ্ঠ অফিসার ইনচার্জ কে.এম. তারিকুল ইসলাম কে সম্মাননা প্রদান

শাওয়াল মাসের ছয় রোজার গুরুত্ব ও ফজিলত

  • আপলোডের সময় : বুধবার, ৩ জুন, ২০২০
  • ৩৮৭ বার নিউজটি দেখা হয়েছে

হাফেজ মুফতি জাহিদুল ইসলাম বেলাল : শাওয়ালা মাসের ছয়টি রোজার মাধ্যমে রমজানের রোজার শুকরিয়া আদায় করা হয়। যখন কোনো বান্দার আমল আল্লাহ কবুল করেন, তখন তাকে অন্য নেক আমলের তাওফিক দেন। সুতরাং এ রোজাগুলো রাখতে পারা রমজানের রোজা কবুল হওয়ার সুলক্ষণও বটে। রসুলুল্লাহ (সা.) নিজে এ রোজা রাখতেন এবং সাহাবায়ে কিরামদের রোজা রাখার নির্দেশ দিতেন। হজরত আবু আইয়ুব আনসারি (রা.) থেকে বর্ণিত, রসুল (সা.) বলেন, ‘যে ব্যক্তি রমজানের রোজা রাখল, অতঃপর শাওয়ালের ছয়টি রোজা রাখল, সে যেন সারা বছরই রোজা রাখল। ’ (মুসলিম শরিফ, হাদিস ৮২২)।
এ হাদিসের ব্যাখ্যায় মুহাদ্দিসিনে কিরাম বলেন, রমজানের ৩০টি রোজার সঙ্গে শাওয়ালের ছয়টি রোজা যুক্ত হলে মোট রোজার সংখ্যা হয় ৩৬টি। আর প্রতিটি পুণ্যের জন্য ১০ গুণ পুরস্কারের কথা উল্লেখ রয়েছে কোরআনুল কারিমে। সূরা আনআমের ১৬০ নম্বর আয়াতে ইরশাদ হয়েছে, ‘যে ব্যক্তি একটি পুণ্য কাজ করল, সে ১০ গুণ সাওয়াব পাবে। ’ এ হিসাবে যে ব্যক্তি রমজানের এক মাস রোজা রাখল, আর শাওয়ালের ছয়টি রোজা রাখে তাহলে ৩৬টি রোজার ১০ গুণ হলে ৩৬০টি রোজার সমান। অর্থাৎ সারা বছর রোজা রাখার সমান সাওয়াব হবে। সাওবান (রা.) থেকে বর্ণিত, রসুলুল্লাহ (সা.) ইরশাদ করেন, ‘রমজানের রোজা ১০ মাসের রোজার সমতুল্য আর (শাওয়ালের) ছয় রোজা দুই মাসের রোজার সমান। সুতরাং এ হলো এক বছরের রোজা। ’ (নাসায়ি শরিফ, ২য় খণ্ড, পৃষ্ঠা. ১৬২)। হজরত উবাইদুল্লাহ (রা.) থেকে বর্ণিত, তিনি বলেন, একদিন রসুলুল্লাহ (সা.)-কে জিজ্ঞেস করলাম, ‘ইয়া রসুলুল্লাহ, আমি কি সারা বছর রোজা রাখতে পারব?’ তখন রসুলুল্লাহ (সা.) বললেন, ‘তোমার ওপর তোমার পরিবারের হক রয়েছে। কাজেই তুমি সারা বছর রোজা না রেখে রমজানের রোজা রাখ এবং রমজান-পরবর্তী শাওয়ালের ছয়টি রোজা রাখ, তাতেই সারা বছর রোজা রাখার সওয়াব পাবে। ’ (তিরমিজি শরিফ, খণ্ড, ১ পৃ. ১৫৭)।

এই করোনাভাইরাসের এ মহামারীতে আমাদের ৩০টি রোজা রাখার তাওফিক দিয়েছেন এখন আমরা শাওয়ালের ছয়টি নফল রোজা আদায় করি। মহান আল্লাহ আমাদের কবুল করুক।আমিন।

সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করুণ :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরও খবর :
© All rights reserved © 2020 The Daily Dipanchal
Customized By BlogTheme